১৭ কোটি মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করাই আমাদের লক্ষ্য: প্রধানমন্ত্রী

ধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ১৭ কোটি মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন, নিরাপত্তা বিধান করাই আমাদের লক্ষ্য। সেভাবেই আনসার সদস্যদের কাজ করতে হবে। সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) সকালে গাজীপুরের সফিপুর আনসার একাডেমিতে বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর ৪৪তম জাতীয় সমাবেশের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, জননিরাপত্তায় সব অশুভ শক্তি রুখে দিতে জাতীয় সম্পদ রক্ষায় আনসার বাহিনীর সদস্যরা দায়িত্বশীলভাবে কাজ করছেন। যে কারণে দেশ-বিদেশে সব জায়গায় বাহিনী সুনাম অর্জন করছে। প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, বাহিনীর সদস্যদের পর্যায়ক্রমে স্থায়ী করা হবে। এ সময়, দুর্গম পাহাড়ে সেনাবাহিনীর সঙ্গে আনসার সদস্যরা কাজ করাসহ বিভিন্ন সংকট মুহূর্তে দক্ষতার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করায় এ বাহিনীকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন। প্রধানমন্ত্রী আনসার-ভিডিপি একাডেমির প্যারেড গ্রাউন্ডে পৌঁছালে তাকে অভ্যর্থনা জানান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল, সিনিয়র সচিব, মো. মোস্তাফিজুর রহমান, বিপিএএ, বাহিনীর মহাপরিচালক মেজর জেনারেল একেএম আমিনুল হক। প্রধানমন্ত্রীকে সশস্ত্র সালাম জানায় আনসার বাহিনীর একটি চৌকস দল। একটি খোলা জিপে করে তিনি প্যারেড পরিদর্শন করেন। প্রধানমন্ত্রী কুচকাওয়াজের পর কৃতিত্বপূর্ণ কাজের স্বীকৃতি হিসেবে ১৮০ জন আনসার সদস্যদের পদক পরিয়ে দেন। অনুষ্ঠানে আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর অতিরিক্ত মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল  নাজিম উদ্দিন, আনসার ও ভিডিপি একাডেমির কমান্ড্যান্ট নূরুল হাসান ফরিদী, বাহিনীর উপ-মহাপরিচালকরা, অন্যান্য কর্মকর্তা ও আনসার- ভিডিপি সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। এছাড়া আরও উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রী পরিষদের সদস্যরা, সংসদ সদস্যরা, মন্ত্রী পরিষদ সচিব, তিন বাহিনী প্রধান, সিনিয়র সচিবরাসহ বিভিন্ন বাহিনীর প্রধানরা, কূটনৈতিক ব্যক্তিরা, সামরিক ও বেসামরিক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা, প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার ঊর্ধ্বতন ব্যক্তিরা এবং আমন্ত্রিত অতিথিরা। পরে প্রধানমন্ত্রী আনসার ভিডিপির লেকের পাড়ে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপভোগ করেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top